মাত্র ১৪ বছর বয়সে দুর্দান্ত গান গেয়ে সবাইকে মুগ্ধ করেছিলেন ছোট্ট শ্রেয়া ঘোষাল, ভাইরাল ভিডিও

বংট্রেন্ডি অনলাইন ডেস্ক: সঙ্গীতপ্রেমীদের অন্যতম পছন্দের শিল্পী শ্রেয়া ঘোষাল। গানের মাধ্যমে জয় করে নিয়েছেন সকলের মন। তাঁর সুরেলা কন্ঠ সকলের মনে আনে প্রশান্তি। তাঁকে সুরের জাদুঘর বলা চলে। তাঁর গান কোনো ফিল্মে থাকলে, সেটি যেন অন্য মাত্রা পায়। বাংলা বা হিন্দি নয় সমগ্র সঙ্গীত জগতের নক্ষত্র তিনি। শ্রেয়া ঘোষাল মাত্র চার বছর বয়স থেকে গান গাওয়া শুরু করেছিলেন।

শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের চর্চা তিনি ছোট থেকেই করতেন। এরপর 16 বছর বয়সে তিনি সা রে গা মা পা-তে অংশগ্রহণ করেন ও জয়লাভ করেন। এই জয়ের পর আর তাকে পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। একের পর এক কাজ করে গেছেন গান নিয়ে। বহুদিনের সম্পর্কের পর তিনি বিবাহ করেন শিলাদিত্যকে। সম্প্রতি তাঁর পুত্রসন্তান হয়েছে। ফলে নতুনভাবে জীবনযাপন করছেন গায়িকা।

সম্প্রতি শ্রেয়া ঘোষালের ছোটবেলার ভিডিও স্যোশাল মিডিয়ার সামনে এসেছে। ভিডিওটি শুধু ভাইরাল হয়েছে তাই নয়, এই ভিডিওটি মুগ্ধ করে দিয়েছে সকলকে। ভিডিওটিতে ১৬ বছর বয়সী শ্রেয়া ঘোষালকে দেখা গেছে যে, তিনি ২০০০ সালে সারেগামাপাতে গান করে মুগ্ধ করেছেন বিচারকদের। সেই সময় তাঁর কণ্ঠে শোনা গিয়েছিল একটি রাজস্থানী ফোক গান। সেমি ফাইনাল রাউন্ডে তাঁর গলায় রাজস্থানী ফোক সঙ্গীত শুনে সকলে মুগ্ধ হয়েছিলেন। সেই সেমিফাইনালে অনুষ্ঠানে উসা খান্না, সাবির কুমারের সহ নামীদামী সঙ্গীতশিল্পীরা উপস্থিত ছিলেন।

এমনকি সেইসময়কার সঞ্চালক সোনু নিগম তাকে জিজ্ঞাসা করেছিলেন “তোমার মাতৃভাষা বাংলা, তাহলে এত সুন্দর রাজস্থানী ভাষায় গান কিভাবে গাইছো? ” এই প্রশ্নের উত্তরে শ্রেয়া ঘোষাল বলেছিলেন যে, ভারতের সব ভাষাই তাঁর কাছে প্রিয়। এতো বছর পরে শ্রেয়া ঘোষালের এই ভিডিওটি আবার স্যোশাল মিডিয়ায় ঘোরাফেরা করছে। আর প্রিয় শিল্পীর এমন ভিডিও সবাই পছন্দ করবেন, এটাই তো স্বাভাবিক।

Back to top button