গড়াবে রেলের চাকা, সম্ভবত এই দিন থেকেই বাংলায় চালু হচ্ছে লোকাল ট্রেন

নিজস্ব প্রতিবেদনকরোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে সাধারন মানুষ নাজেহাল হয়ে পড়লেও রাজ্যে প্রচুর পরিমাণে ভ্যাকসিন ও কড়া বিধিনিষেধ জারী করার ফলে এই পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে সক্ষম হতে পেরেছে মানুষ। আগের থেকে কমেছে সংক্রমণের সংখ্যা ও পাশাপাশি কমেছে মৃত্যুর সংখ্যাও।

ফলে মুখ্যমন্ত্রী অনেক কিছুতেই ছাড় দিতে সক্ষম হয়েছে। দোকান বাজার সবই খোলার অনুমতি দিয়েছেন, সরকারি বেসরকারি বাস চলার অনুমতি দিয়েছেন। তবে ট্রেন চলাচলের অনুমতি দিতে পারছেন না এই মুহূর্তে।

ট্রেন চালু না করার ফলে প্রতিনিয়ত সমস্যায় পড়ছে সাধারণ মানুষ। রাজ্যে কিছু বিশেষ ট্রেন চলছে তবে সেটা শুধুমাএ অফিস স্টাফদের জন্য। সেখানে সাধারন মানুষ যাতায়াত করতে পারবে না। ফলে এই নিয়ে সাধারণ মানুষের বক্তব্য একদল কাজ করতে যেতে পারবে আর এক দল পারবে না এরকম তো হতে পারে না। ফলে অনেকে স্টেশনে বিদ্রোহ করতে দেখা গিয়েছে। কিন্তু এসবের সত্বেও সরকারের কিছু করার যায়গা নেই। কারণ ট্রেন চলাচল শুরু হলেই রাজ্যে করোনা পরিস্থিতি বেড়ে যাবে, আর না চললে সাধারন মানুষের বিক্ষোভ চলতে থাকবে।

রেল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, আগামী ১৫ জুলাই থেকে রাজ্যে লোকাল ট্রেন চলাচল শুরু হবে। খবরটা সত্যিই খুব খুশির। রাজ্যে এখন সংক্রমণ অনেকটাই কম। মৃত্যুর সংখ্যাও অনেক কমেছে। তবে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি ১ জুলাই পর্যন্ত অপেক্ষা করার খবর জানিয়েছে। তবে আশাকরা যায় ১৫ তারিখ থেকেই শুরু হতে পারে ট্রেন চলাচল।

লোকাল ট্রেন চলাচল শুরু হলে অনেক মানুষের ইনকামের পথও খুলবে আবার মানুষজন কাজেও যেতে পারবে। ফলে ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হতে পারবে মানুষ। তবে ট্রেন চালু করা হলেও আগের মতো সব সুবিধা পাওয়া যাবে কিনা এখনও জানাননি রেল কর্তৃপক্ষ।

Back to top button