এখন মেয়ে আর পাত্তা দেয়না দাদাগীরির মঞ্চে সানাকে নিয়ে মুখ খুললেন সৌরভ গাঙ্গুলী

বংট্রেন্ডি অনলাইন ডেস্ক: একসময় ভারতীয় ক্রিকেট দল তার আগ্রাসন দেখেছে এখন তিনি ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান। যার কথা বলা হচ্ছে তিনি হচ্ছেন প্রিন্স অফ ক্যালকাটা। জি বাংলা রিয়্যালিটি শো দাদাগিরি’র মঞ্চে সে সঞ্চালকের ভূমিকায় থাকে। খেলাধুলার বিভিন্ন প্রশ্নের পাশাপাশি প্রতিযোগীদের সাথে সৌরভ গাঙ্গুলীর ও কিছু ব্যক্তিগত জীবনের কথা উঠে আসে দাদাগীরির মঞ্চে।

তার ব্যক্তিগত জীবনের কথা জানতে প্রতিযোগি থেকে শুরু করে দর্শকেরাও প্রচন্ড আগ্রহী হয়ে থাকে। টিআরপির তালিকায় জি বাংলার এই রিয়েলিটি শো প্রথম সারিতেই আছে। টনিক সিনেমার লোকজনেরা দাদাগীরির মঞ্চে এসেছিল গত শনিবারে। ছবির মুখ্য চরিত্র যে ছিল অর্থাৎ দেব এর সাথে পরান বন্দ্যোপাধ্যায়, শকুন্তলা বড়ুয়া, তুলিকা বসু, নীল মুখোপাধ্যায়রা এসেছিলেন।

প্রতিযোগীদের সাথে সৌরভের আড্ডা শো তে জমে উঠেছিল। কিন্তু অভিনেতা দেব সৌরভ গাঙ্গুলী কে প্রশ্ন করেছিল যে তার জীবনের টনিক কি। সৌরভ সরাসরি উত্তর দিয়েছেন যে, “একটা সময় আমার জীবনের টনিক ছিল ক্রিকেট। তবে এখন সেটা পাল্টে গেছে। এখন আমার জীবনের তিনটি টনিক। আমার মা স্ত্রী এবং মেয়ে। এর মধ্যে তৃতীয় জন অর্থাৎ মেয়ে সবার আগে। যদিও মেয়ে পাত্তা দেয় না। এখন 20 হয়ে গেছে তো”

তবে তার মেয়ে এখন পড়াশোনার জন্য ইংল্যান্ডে রয়েছে। ইংল্যান্ডের গ্লোবাল বিশ্ববিদ্যালয় সে এখন পাঠরত। বাবা-মা দুজনেই সানাকে ভর্তি করতে লন্ডনে গিয়েছিল, সেই সময়ই তাদের বেশ কিছু ফটো সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়েছিল। আপাতত মেয়ের সাথে তার স্ত্রী ডোনা গাঙ্গুলী এখন লন্ডনে আছে।

দেবকে তার জীবন সম্পর্কে তার টনিক জিজ্ঞাসা করা হলে দেব উত্তর দিয়েছে যে,” সিনেমা হলের বাইরে নিজের ছবির নামের পাশে হাউসফুল বোর্ড দেখা।” সেই উত্তর শুনে পরান বুড়ো বলেছে যে,” আসল টনিক টার নাম বলছে না।” পরান বুড়োর কথা শুনে দেব মুচকি হেসে ফেলেছে। অবশ্যই সবাই রীতিমতো বুঝতে পেরেছে যে রুক্মিণীর উদ্দেশ্যে কথাগুলো বলা হয়েছে।

Back to top button