হারের থেকে শিক্ষা নাও, তবেই জয় আসবে! বিজেপি নেতাদের পরামর্শ নরেন্দ্র মোদীর

নিজস্ব প্রতিবেদনএকুশের বিধানসভা ভোটের আগে প্রচারে ঝড় তুললেন ফলাফল একদমই ভালো হয়নি গেরুয়া শিবিরের। বিজেপি পুদুচেরি ও অসমে সরকার গড়লেও বড়সড় ধাক্কা খেয়েছে কেরল, তামিলনাড়ু এবং বাংলায়। বাংলায় মাত্র ৭৭ এই থেমে গিয়েছিল বিজেপির গাড়ি। প্রধানমন্ত্রী এদিন বাড়িতে বিজেপির পরাজয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনায় বসেছিলেন। দোলের সমস্ত সাধারণ সম্পাদকদের নিয়ে বৈঠক করেন একুশের ভোটে বিভিন্ন বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির পারফরম্যান্স সম্পর্কে।

পশ্চিমবঙ্গের কথা বলতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন,” ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনে এত খারাপ ফল করার পরেও এত বড় ব্যবধানে তৃণমূল কিভাবে জিতলো তা পশ্চিমবঙ্গের বিজেপি কর্মীদের অবশ্যই দেখতে হবে। ২০১৯ সালে লোকসভা নির্বাচনে ৪২ টি আসনের মধ্যে ১৯ টি আসন দখল করেছিল বিজেপি।”

সঙ্গে বলেন,” জয় পরাজয় যাই হোক না কেন মেয়েদের পারফরম্যান্সের দিকে খেয়াল রাখতে হবে যাতে করে পরবর্তী নির্বাচনগুলিতে ভালো ফল আসে।” আঞ্চলিক ভাষার উপর বিজেপি কর্মীদের জোর দিতে বলে তিনি বলেন,” বিজেপি কর্মীদের আঞ্চলিক ভাষায় অনেক দক্ষ থাকা দরকার সোশ্যাল মিডিয়াকে ভালোভাবে ব্যবহার করার জন্য।”

সূত্রের খবর, এদিন বাংলায় ভোট পরবর্তী হিংসা পরিস্থিতি নিয়ে কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। কেরালায় বিজেপি কর্মীসমর্থকদের আরও খোলামেলা হতে বলেন তিনি। বিশেষ করে যোগাযোগ স্থাপন করতে বলেন খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বী মানুষদের সঙ্গে।

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে বিজেপি কর্মীদের মাঠে নামতে দেখা যায়নি। সরকারকে বারবার সমালোচিত হতে হয়েছে ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে। প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন করোনার তৃতীয় ঢেউ-এর আগে এক লক্ষের অধিক কর্মীদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে স্বাস্থ্য বিষয়ে। ‘সেবাই সংগঠন’ নামে এক প্রকল্প চালু হয়েছে ইতিমধ্যেই। কেন্দ্রীয় বিজেপি কর্মীরা কেন্দ্রীয় সরকারের সপ্তম বর্ষপূর্তি উপলক্ষে দরিদ্র মানুষদের পাশে দাঁড়াতে শুরু করেছেন। এই বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে ১ লক্ষ ৭১ হাজার গ্রাম এবং ৬০ হাজার শহরে ত্রাণ পৌঁছে দেওয়ার।

প্রসঙ্গত, এই বৈঠকের ঠিক আগেই বিজেপির সভাপতি জেপি নাড্ডা এবং পার্টির(সংগঠন) সাধারণ সম্পাদক বিএল সন্তোষ নিজের বাড়িতে বৈঠক করেন বিভিন্ন মোর্চার সম্পাদকদের নিয়ে । বিজেপির সাধারণ সম্পাদক কৈলাস বিজয়বর্গীয় শনিবার বিজেপি কর্মীদের সঙ্গে বৈঠক করেছিলেন পশ্চিমবঙ্গের নির্বাচন নিয়ে। রাজ্য বিজেপিও রবিবার একটি বৈঠক করে।

Back to top button