বাংলায় সনাতন ধর্মের মানুষরাই সবথেকে বেশী আক্রান্তঃ শুভেন্দু অধিকারী

নিজস্ব প্রতিবেদন: গোটা রাজ্যে ভোটের ফলাফল ঘোষণার পর থেকেই রাজনৈতিক প্রতিহিংসা চরিতার্থ করছে তৃনমুল, এমনটাই অভিযোগ বিজেপি নেতাদের।বিভিন্ন মিথ্যা মামলায় ও তাদের ফাঁসানো হচ্ছে বলে অভিযোগ করে বিজেপি কর্মীরা।আর এরই মধ্যে নন্দীগ্রামের বিধায়ক শুভেন্দু অধিকারী অভিযোগ করেন তৃণমূলের বিরুদ্ধে। শুভেন্দু অধিকারী বলেন যে, ‘রাজ্যের বেশী অত্যাচারের শিকার হয়েছেন সনাতন ধর্মে বিশ্বাসী মানুষেরা।” শনিবার উত্তর ২৪ পরগনার পানিহাটিতে গিয়ে তিনি এমটাই বক্তব্য রাখেন।

শনিবার পানিহাটিতে জনসঙ্ঘের প্রতিষ্ঠাতা শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মূর্তি উদ্বোধন করতে যান শুভেন্দু অধিকারী। ভোটের শুনানি ঘোষণার পর পানিহাটির বেঙ্গল কেমিক্যাল কারখানার সামনে শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি ভাঙচুরের অভিযোগ আসে তৃনামূলের মধ্যে থাকা কিছু দুষ্কৃতীদের ওপর। ঐদিন সেই মূর্তি উদ্বোধন করতেই তিনি সেখানে যান,এবং উপস্থিত ছিলেন খোরদহের বিজেপি প্রার্থী সন্ময় ব্যানার্জী।

১৯শে মে তৃণমূল দুষ্কৃতীরা পানিহাটির বিজেপি পার্টি অফিসে হামলা করে, এবং সেখানে শ‍্যামাপ্রসাদ মুখার্জির মুর্তি ভাঙচুর করে। তিনি বলেন আজ ভারত কেশরী শ‍্যামাপ্রসাদ মুখার্জির নতুন একটি মূর্তি প্রতিস্থাপন করে মাল্যদান করলাম।

শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি উদ্বোধনের পর সাংবাদিকদের সাথে কথা বলেন তিনি।শুভেন্দু অধিকারী বলেন যে, ‘তৃণমূলের গুন্ডা বাহিনী গোটা বাংলাজুড়ে বিজেপির কর্মীদের উপর অত্যাচার চালাচ্ছে। আর ওঁরা যেখানে আমাদের কর্মীদের উপর আক্রমণ করতে ব্যর্থ হচ্ছে, সেখানে পুলিশকে কাজে লাগিয়ে আমাদের কর্মীদের উপর অত্যাচার চালাচ্ছে। আমাদের কর্মীদের উপর মিথ্যে মামলা দেওয়া হচ্ছে। ওদের গুন্ডা বাহিনীর হাতে সনাতন ধর্মাবলম্বীরা বেশী করে আক্রান্ত হচ্ছে।”

শুভেন্দু অধিকারী নিজের সোশ্যাল সাইটে একটি পোস্ট করে করে লেখেন যে, ‘গত ১৯শে মে তৃণমূল দুষ্কৃতীরা পানিহাটির বিজেপি পার্টি অফিস ভাঙচুর করে এবং ভেতরে থাকা শ‍্যামাপ্রসাদ মুখার্জির পূর্ণাবয়ব মূর্তিটি ভেঙে দেয় । আজ ভারত কেশরী শ‍্যামাপ্রসাদ মুখার্জির নতুন একটি মূর্তি পানিহাটির বিজেপি পার্টি অফিসে পূনঃস্থাপন করে মাল‍্যদানের মাধ্যমে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করলাম।”।।

Back to top button