“যোগদান করিনি, BJP-র সাথে লিভ-ইনে ছিলাম”, নুসরত প্রসঙ্গ টেনে মুকুলদের বিদ্রুপ শ্রীলেখার

নিজস্ব প্রতিবেদনমুকুল রায় আর শুভ্রাংশু রায়ের তৃণমূলে ‘ঘর ওয়াপসি’ প্রসঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি পোস্ট শেয়ার করে বললেন, “বিজেপিতে আমি এতদিন যোগদান করিনি। বিজেপির সাথে লিভ-ইনে ছিলাম। তাই বিজেপি ছাড়ার কোনো প্রশ্ন ওঠে না।” আর তাতেই যেন নুসরত আর নিখিলের সম্পর্কের ওই ঘটনা নিয়ে খোঁচা দিলেন অভিনেত্রী। লেখাটি তিনি হয়তো কোনো জায়গা থেকে পেয়েছিলেন। সেটাই ফেসবুকে শেয়ার করেছেন শ্রীলেখা।

বেশ কয়েকদিন ধরে কানাঘুষো শোনা যাচ্ছিল যে, মুকুল রায় ও তাঁর ছেলে শুভ্রাংশু রায় ফের তৃণমূলে ফিরবেন। গত সপ্তাহে এই জল্পনা আরও বাড়ে যখন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় মুকুল রায়ের অসুস্থ স্ত্রীকে হাসপাতালে দেখতে যান। সেখানে তিনি মুকুল রায়ের পুত্র শুভ্রাংশুকে, “পাশে আছি” বলে আশ্বস্ত করেন। তারপর থেকে পিতা-পুত্রের তৃণমূলে ফেরা নিয়ে জল্পনা আরও জোরদার হয়।

শুক্রবার এই জল্পনা সত্যি করে বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করেন মুকুল-শুভ্রাংশু। আর তার ঠিক আগেই শ্রীলেখা মিত্র ফেসবুকে পোস্টটি করেছেন। যেখানে তিনি পরোক্ষে নুসরত জাহান এবং নিখিল জৈনের সম্পর্কে টানাপোড়েন নিয়েও বিদ্রুপ করেছেন তিনি।

নুসরত-নিখিলের মামলা বর্তমানে আদালতে গিয়ে পৌঁছিয়েছে। দেওয়ানি আদালতে নুসরতের থেকে আলাদা থাকতে চাইতে মামলা করেছেন নিখিল। এমন পরিস্থিতিতেই বিবৃতি জারি করে নুসরত জানিয়েছিলেন, তুরস্কে ধুমধাম করে নিখিল জৈনের সঙ্গে যে ডেস্টিনেশন ওয়েডিং তিনি করেছিলেন, তা ভারতীয় আইনে বৈধ হয়। নিখিলের সঙ্গে তাঁর ম্যারেজ রেজিস্ট্রেশনও হয়নি।

তাই বিয়ে নয় নিখিলের সঙ্গে লিভ-ইন রিলেশনশিপে থাকতেন এবং বিচ্ছেদের কোনও প্রয়োজন নেই বলেই দাবি করেছিলেন তৃণমূলের তারকা সাংসদ। লিভ-ইনের সেই প্রসঙ্গ তুলে এনেই আবার মুকুল-শুভ্রাংশুর ‘ঘর ওয়াপসি’ নিয়ে ব্যঙ্গ করলেন অভিনেত্রী।

Back to top button