পরিবারের কুলাঙ্গার আমি, কিন্তু কেনো? মুখ খুললেন যশ দাশগুপ্ত

নিজস্ব প্রতিবেদন: টলিউডের শ্রাবন্তী থেকে শুরু করে নুসরত সবাই বিবাহবিচ্ছেদের পথে পা রেখেছে। কিন্তু বর্তমানে নুসরত শিরোনামের শীর্ষে তার কারণ তিনি অন্তঃসত্ত্বা। ইতিমধ্যেই বেশ কয়েকবার নুসরতের প্রাক্তন নিখিল জৈন নিজের মনের কথা জানিয়েছেন সংবাদমাধ্যমে। নিখিল বারংবার বলেছেন নুসরাতের আগত সন্তান তার নয়। বেশ কয়েকটি ফ্যান ক্লাবও তৈরি হয়ে গিয়েছে নিখিল জৈনকে সহানুভূতি দেখানোর জন্য।

কিন্তু যশ দাশগুপ্ত এই বিতর্ক থেকে নিজেকে দূরে সরিয়ে রাখতে চাইছেন। কিন্তু বাবা মাকে কি কখনো এড়িয়ে যাওয়া যায়? এই কথা বুঝতে পারা যাচ্ছে সম্প্রতি একটি ইনস্টাগ্রাম পোস্ট থেকে। যশ দাশগুপ্ত পরিবারের সকলের সাথে লড়তে পারছেন না, সমাজের সাথে লড়তে পারলেও।

যশ দাশগুপ্ত বুধবার নিজেরই ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে লিখেছিলেন,“পরিবার বলতে আমরা বুঝি সব থেকে নিরাপদ জায়গা। কিন্তু কখনো কখনো এই পরিবার আমাদের গভীর ভাবে আঘাত দিয়ে দেয়।” নেট দুনিয়া ফের উত্তাল হয়েছে যশ দাশগুপ্তের এই ইনস্টাগ্রাম স্টোরি প্রকাশ্যে আসার পর থেকে। সকলেই সন্দেহ করছেন, যশের পরিবারের সঙ্গে মনোমালিন্যের সৃষ্টি হচ্ছে ব্যক্তিগত সম্পর্ককে কেন্দ্র করে। এই সন্দেহ দূর হয় কয়েক ঘণ্টার মধ্যে অভিনেতার তরফ থেকে যখন দ্বিতীয় স্টোরি আসে।

একটি সাদা কালো ছবি দিয়ে দ্বিতীয় স্টোরিতে লিখলেন,” আমি পরিবারের কুলাঙ্গার হতে পারি কিন্তু পরিবারের যারা নিজেদের খুব সৎ বলে মনে করেন তারা কিন্তু ততটা সৎ নয়।” এই স্টোরি দেখে এটি স্পষ্ট যে, পরিবারের সঙ্গে যশ দাশগুপ্তের মনোমালিন্যের সৃষ্টি হয়েছে। একদিকে অভিনয় জগত, একদিকে রাজনীতি, একদিকে ব্যক্তিগত জীবন সবকিছু সামলাতে গিয়ে কোণঠাসা হয়ে পড়ছেন এই অভিনেতা।

Back to top button