৫-এর বদলা ৫০! গণনায় কারচুপির অভিযোগে আদালতের দ্বারস্থ হচ্ছে বিজেপি

নিজস্ব প্রতিবেদননন্দীগ্রামে ভোট গণনায় কারচুপির অভিযোগ তুলে রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে হাইকোর্টের কাছে অভিযোগ দায়ের করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি দাবি করেছেন ভোট পুনর্গণনা করতে হবে। সাথে আরও ৪ জন প্রার্থী পূর্ব মেদিনীপুরের তৃণমূল প্রার্থী সংগ্রাম কুমার দলুই, উত্তর ২৪ পরগনার বনগাঁ দক্ষিণের তৃণমূল প্রার্থী রানী সরকার, পুরুলিয়ার বলরামপুরের তৃণমূল প্রার্থী শান্তিরাম মাহাতো এবং হুগলির গোঘাটের তৃণমূল প্রার্থী মানস মজুমদার হাইকোর্টে অভিযোগ করেছেন।

ভোট আবার নতুন করে গণনার দাবী নিয়ে তৃণমূল তৎপর হলে বিজেপিও এবার কমপক্ষে ৫০টি আসনে পুনরায় গণনার আবেদন জানাতে পারে বলে সূত্রের খবর। এর ফলে আশঙ্কা করা যায় রাজ্যে আবার নতুন করে যুদ্ধের সৃষ্টি হতে পারে।

তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নন্দীগ্রামের রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে হাইকোর্টে যাওয়ার পর থেকে বিজেপি ভোট পরবর্তী হিংসা নিয়ে বেশি মাতামাতি শুরু করেছে। তৃনমূল সূত্রের খবর, বিজেপি এই হার স্বীকার করতে পারছে না তাই এরকম করছে। তবে মমতা বন্দোপাধ্যায় আদালতে অভিযোগ করার পর থেকে রাজ্যে নতুন করে আন্দোলনের ঝড় বয়ে আসে।

নন্দীগ্রামে ভোট কারচুপির দাবিতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আদালতে গেলে সেই ব্যাপারে কোনো বিরোধীতা করতে দেখা যায়নি বিজেপিকে। নন্দীগ্রামের বিধায়ক শুভেন্দু অধিকারী জানিয়েছেন, তিনি আদালতে যেতেই পারেন সেটা তার ব্যাক্তিগত ব্যাপার। কিন্তু আদালতে গেলেও রায়ের কোনো পরিবর্তন হবে না।

Back to top button